উলিপুরে সরকারি ধানবীজ বিক্রয়ের সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে মিথ্যা মামলায় সাংবাদিক

উলিপুরে সরকারি ধানবীজ বিক্রয়ের সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে মিথ্যা মামলায় সাংবাদিক

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধিঃ কুড়িগ্রামের উলিপুরে সরকারি ধানবীজ বিক্রয়ের সংবাদ সংগ্রহ করতে গিয়ে মিথ্যা মামলার শিকার হয়েছেন তিনজন সাংবাদিক। এ ঘটনায় আব্দুর রহিম নামে এক সাংবাদিককে গ্রেফতার করে জেল হাজতে পাঠিয়েছে পুলিশ। বর্তমানে সে জামিনে বের হয়ে।

মামলার শিকার সাংবাদিকরা জানান, গত ১০.০৮.২০১৯ইং তারিখে কুড়িগ্রামের উলিপুর উপজেলার গুনাইগাছ ইউনিয়নে দায়িত্বরত উপ-সহকারী কৃষি অফিসার আলমগীর হোসেন সরকারী ছুটিতে অফিস বন্ধ থাকলেও তিনি কমিউনিটি বীজতলার জন্য কৃষি অফিস থেকে ২৯ বস্তা ধানের বীজ উত্তোলন করে বিক্রির উদ্দ্যেশে উলিপুর বাজারের খাদ্য গুদামের সামনে অবস্থিত মমিনুলের কৃষি উপকরণ বিপনী/ দোকানে রাখলে স্থানীয় জনতা তা দেখে সাংবাদিককে খবর দেয়। পরে উপজেলা প্রেসক্লাবের আহবায়ক মোঃ মিজানুর রহমান,কলকাতা টিভির স্টাফ রিপোর্টার ফিরোজ কবীর কাজলসহ কয়েকজন সাংবাদিক সেখানে উপস্থিত হয়। সাংবাদিক ও জনতা কৃষি উপকরণ বিক্রির দোকানে ধানের বীজ রাখার কারণ জানতে চাইলে উপ-সহকারী কৃষি অফিসার আলমগীর হোসেনের কথার গড়মিল হলে সাংবাদিকগণ উক্ত ধানবীজের ছবি তুলতে গেলে উপ-সহকারী কৃষি অফিসারসহ দোকানদার তাদের উপর চড়াও হয়ে ক্যামেরা ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্ঠা করেন এবং সাংবাদিকগণের পেশাগত দায়িত্ব পালনের বাধা সৃষ্টি করে। সেখানে স্থানীয় দোকাদারসহ জনতা এসে বিষয়টি নিষ্পত্তি করে দেন। পরে উপ-সহকারী কৃষি অফিসার আলমগীর হোসেন উক্ত সাংবাদিকগণের বিরূদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করেন।

সাংবাতিকদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলার তীব্র নিন্দা জানিয়েছেন বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম ঢাকা জেলা ও কুড়িগ্রাম জেলা শাখার নেতৃবৃন্দ।

Categories: রংপুর

Tags: